বোয়ালখালীতে কাপড়ের দোকানে চোলাই মদ, ষড়যন্ত্র বলছে ব্যবসায়িরা

বোয়ালখালী প্রতিনিধি : চট্টগ্রামের বোয়ালখালীতে একটি কাপড়ের দোকানে মদ ব্যবসার হদিস পেয়েছে থানা পুলিশ। সোমবার (১৬ সেপ্টেম্বর) রাত সাড়ে ১১টার দিকে উপজেলার কানুনগোপাড়ায় অভিযান চালিয়ে রুবেল মহাজন (৩২) নামের এক ব্যক্তিকে আটক করে পুলিশ।

তার স্বীকারোক্তি মতে কানুনগোপাড়া স্যার আশুতোষ সরকারি কলেজ এলাকার চান্দু মার্কেটের দ্বিতীয় তলায় জেন্টাল বয় নামক একটি কাপড়ের দোকান থেকে ২০লিটার চোলাই মদ উদ্ধার করা হয় বলে জানিয়েছেন থানার উপ-পরিদর্শক আবু কাউসার।

তিনি বলেন, আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর চোখকে ফাঁকি দিতে কাপড়ের ব্যবসার আড়ালে দীর্ঘদিন ধরে এ মাদকের ব্যবসা চালিয়ে আসছিলো দুইভাই রুবেল ও উজ্জ্বল। গ্রেফতারকৃত মাদক ব্যবসায়ী রুবেল মহাজন উপজেলার পোপাদিয়া বিদগ্রামের মৃত রঘুনাথ মহাজনের ছেলে।

পোপাদিয়া ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য যীশু দে জানান, ‘সোমবার রাত ১২টার দিকে থানার উপ-পরিদর্শক আবু কাউসার ফোনে জানান রুবেলের দোকানে মদ রয়েছে, তাই দোকান খোলার ব্যবস্থা করতে। তখন আমি শহরে ছিলাম। পরে শহর থেকে এলাকায় এসে রুবেলকে ঘর থেকে ডেকে নিয়ে দোকানে যায় এবং দোকানের তালা খুলে প্রায় ২ লিটার মদ উদ্ধার করে পুলিশ।’

রুবেল ও উজ্জ্বল দুই ভাই খুবই ভালো ছেলে, তাদের মা রত্না মহাজন একজন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষিকা। তারা এ ধরণের ঘটনায় জড়িত থাকতে পারে না বলে মন্তব্য করেন ইউপি সদস্য যীশু দে।

কানুনগোপাড়া ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতির সভাপতি মো কাশেম জানান, রাতে মদ উদ্ধারের সময় পুলিশ আমাকে ডেকে নিয়ে যায় জেন্টাল বয় নামীয় ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে, তালা খোলার পর দোকান থেকে ৪টি স্যালাইন ব্যাগ ভর্তি ২ লিটারের মতো মদ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

স্থানীয় ব্যবসায়ী ও এলাকাবাসীর সাথে কথা বলে জানা গেছে, কাপড়ের দোকানে মদ ব্যবসা করার সুযোগ নেই, ঘটনাটি ষড়যন্ত্রমূলক বলে দাবি করছেন তারা। চান্দু মার্কেটের দ্বিতীয় তলার জেন্টাল বয় নামক কাপড়ের দোকানটির মালিক উজ্জ্বল ও তার ভাই রুবেল একই মার্কেটের গৌরি স্টুডিওর মালিক।

থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ মোহাম্মদ নেয়ামত উল্লাহ বলেন, এ ব্যাপারে আসামীদের বিরুদ্ধে মাদক নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে। পলাতক আসামীকে গ্রেফতারে অভিযান চলছে।

বিএম/পুজন/আরএস..