১২ উপ কমিটি নিয়ে আ’লীগের সম্মেলনের প্রস্তুতি

আওয়ামী লীগের জাতীয় সম্মেলনের প্রস্তুতি সম্পন্ন করতে ১২টি উপ-কমিটি গঠন করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন দলটির সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

আজ বুধবার (১৮ সেপ্টেম্বর) আওয়ামী লীগ সভাপতির ধানমন্ডির রাজনৈতিক কার্যালয়ে এক সভায় এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।
তাছাড়া শনিবার (২১ সেপ্টেম্বর) থেকে তৃণমূল পর্যায়ের সম্মেলনের কার্যক্রম পুনরায় শুরু হবে বলেও জানালেন তিনি।

সভা শেষে সংবাদ সম্মেলনে ওবায়দুল কাদের বলেন, আগামী ২০ ও ২১ ডিসেম্বর জাতীয় সম্মেলনকে সামনে রেখে প্রস্তুতি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করতে ১২টি উপ-কমিটি গঠন করা হয়েছে। দলের সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কমিটিগুলো অনুমোদন দিলে ঘোষণা করা হবে। ২০ ডিসেম্বর বিকেল সাড়ে ৩টায় ঐতিহাসিক সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে জাতীয় কাউন্সিলের উদ্বোধন করা হবে। পর দিন ২১ ডিসেম্বর কাউন্সিল অধিবেশন অনুষ্ঠিত হবে। এই কাউন্সিলকে সামনে রেখে সব প্রস্তুতি সম্পন্ন করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। আগামী ১০ ডিসেম্বরের মধ্যে ওয়ার্ড, ইউনিয়ন, উপজেলা, থানা, জেলা ও মহানগরে- যেসব জায়গায় কমিটির মেয়াদোত্তীর্ণ হয়েছে, সেগুলোর সম্মেলন করা হবে। আগামী ২১ সেপ্টেম্বর থেকে ১৫ অক্টোবর পর্যন্ত তৃণমূলের সম্মেলনগুলোর প্রস্তুতি কার্যক্রম চলবে। দায়িত্বপ্রাপ্ত কমিটির নেতারা সমন্বয় করে সুবিধাজনক সময়ে সম্মেলনের তারিখ নির্ধারণ করবেন।

গত তিন বছরে এ সম্মেলনগুলো করা হয়নি, এখন তিন মাসে করা সম্ভব কি-না সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের উত্তরে ওবায়দুল কাদের বলেন, তিন বছর আগে অনেক সম্মেলন হয়েছে। তখন কমিটি হয়নি। গত তিন বছরে আমরা কমিটিগুলো দিয়েছি। কুমিল্লা মহানগরের কমিটি দেওয়া হয়েছে ২২ বছর পর। নারায়ণগঞ্জের কমিটি দেওয়া হয়েছে ১৮ বছর পর। তিন বছরে অনেকগুলো সিটি করপোরেশন নির্বাচন হয়েছে। জাতীয় নির্বাচন ছিল। আমরা মেয়াদোত্তীর্ণ কমিটিগুলোর সম্মেলন অগ্রাধিকার ভিত্তিতে করবো। সেভাবে অগ্রসর হচ্ছি।

ডিসেম্বরে সিটি করপোরেশন নির্বাচনের মধ্যে আওয়ামী লীগের জাতীয় সম্মেলন কীভাবে হবে এমন প্রশ্নের উত্তরে সেতুমন্ত্রী বলেন, ডিসেম্বরে সিটি করপোরেশন নির্বাচন না, তফসিল ঘোষণা করা হবে। আমরা সেভাবে চিন্তা-ভাবনা করেই দলের জাতীয় সম্মেলনের তারিখ নির্ধারণ করেছি।

সম্পাদকমণ্ডলীর এ সভায় সভাপতিত্ব করেন ওবায়দুল কাদের। সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ, জাহাঙ্গীর কবির নানক, আব্দুর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন, আফম বাহাউদ্দিন নাছিম, খালিদ মাহমুদ চৌধুরী, একেএম এনামুল হক শামীম, ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল, মিজবাহ উদ্দিন সিরাজ, সংস্কৃতি বিষয়ক সম্পাদক অসিম কুমার উকিল, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার আব্দুস সবুর, মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক মৃণাল কান্তি দাস, দপ্তর সম্পাদক ড. আব্দুস সোবহান গোলাপ, কৃষি বিষয়ক সম্পাদক ফরিদুন্নাহার লাইলি প্রমুখ।