ডেমরায় বাস চাপায় কলেজ ছাত্র নিহত,সড়ক অবরোধ

বিএম ডেস্ক : রাজধানীর ডেমরায় রমজান বাসের চাপায় এক কলেজ শিক্ষার্থী নিহত হয়েছেন। নিহত ওই শিক্ষার্থীর নাম তাসকিন ওরফে ইরান (১৯)। সে গোলাম মোস্তফা কলেজের শিক্ষার্থী।

শুক্রবার বেলা সাড়ে ১২টার দিকে এই ঘটনাটি ঘটেছে।

স্থানীয়দের কাছে খবর পেয়ে নিহত ইরামের লাশ তার পরিবারের লোকজন উদ্ধার করে বাড়িতে নিয়ে যায়।

ঘটনার পর থেকে তার সহপাঠীরা ডেমরার স্টাফ কোয়ার্টার থেকে রামপুরা পর্যন্ত সড়ক অবরোধ করে করেছে। অবরোধের কারণে এই সড়কে সব ধরনের যানবাহন চলাচল বন্ধ রয়েছে।

এদিকে দুর্ঘটনার পর পালিয়ে যাওয়ার সময় রামপুরা থেকে ট্রাফিক পুলিশ রমজান পরিবহনের ওই বাসটিসহ (ঢাকা মেট্রো ব-১৫-৩৬৮৭) চালক মো. শামীম ও হেলপার মুন্না মিয়াকে আটক করেছে।

ঘটনার সতত্য নিশ্চিত করে ডেমরা থানার উপ পরিদর্শক মোজাম্মেল হক বলেন, নিহত ওই শিক্ষার্থীর নাম পরিচয় এখনও জানা যায়নি। তবে ঘটনাস্থলে আমাদের কর্মকর্তারা আছেন।

সড়ক অবরোধ

এদিকে মীরপাড়া এলাকায় গ্যারেজে রাখা অন্তত ৩৫টি গাড়ি ভাঙচুর করেছে শিক্ষার্থীরা। তাছাড়া এলাকার অন্যান্য সব গ্যারেজে গিয়ে শিক্ষার্থীরা বাস ভাঙচুর করে।

বিক্ষোভের সময় উত্তেজিত শিক্ষার্থীরা বলেন, ডেমরার যাত্রীবাহী বাসগুলোর চালক ও হেলপাররা সব অদক্ষ ও অপ্রাপ্ত বয়স্ক। তার নেশাগ্রস্ত হয়ে সড়কে অনেক বেপরোয়া হয়ে গাড়ি চালালেও পুলিশ কিছু বলে না।

ডেমরা থানা পুলিশ ও ট্রাফিক পুলিশদের মাসোহারা দিয়ে অপ্রাপ্ত বয়স্করা গাড়ি চালায় বলে ডেমরার সড়কে প্রতিনিয়ত দুর্ঘটনা হচ্ছেই। প্রশাসন সঠিক ব্যবস্থা নিলে এমন হতো না। এ সময় বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা দুই দিনের বিক্ষোভ ঘোষণা করে স্টাফ কোয়ার্টার এলাকায় সব গাড়ি চলাচল বন্ধ করে দেয়।

বিষয়টি নিশ্চিত করে ডেমরা জোনের সিনিয়র সহকারী পুলিশ কমিশনার মো. রবিউল ইসলাম জানান, বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা প্রথমে ভাঙচুর করলেও পুলিশের উপস্থিতির পর তারা রাস্তায় শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভ করছে। নিহতের পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিতে এ বিষয়ে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে। তাছাড়া চালক ও হেলপার আটক রয়েছে।

বিএম/রনী/রাজীব