খুনি সাইফুল কথিত যুবলীগ নেতা টিনুর অনুসারী!

বিএম ডেস্ক : তুচ্ছ প্রেমের ঘটনাকে কেন্দ্র করে বাকলিয়ার চিহ্নিত সন্ত্রাসী সাইফুলের গুলিতে নিহত হয়েছে ওয়ার্ড যুবলীগ নেতা লোকমান হোসেন।  শনিবার গভীর রাতে চট্টগ্রাম নগরীর বাকলিয়া থানার খালপাড় এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। গুলিবর্ষণকারী সাইফুল্লাহ চকবাজার ওয়ার্ড যুবলীগ নেতা নামধারী নুর মোস্তাফা টিনুর অনুসারী এবং বাকলিয়া থানার তালিকাভুক্ত শীর্ষ সন্ত্রাসী আজিজের ছোট ভাই।

নগর পুলিশের অতিরিক্ত উপকমিশনার (দক্ষিণ) শাহ মো. আব্দুর রউফ বলেন, বাকলিয়া থানার খালপাড় এলাকায় নবম শ্রেণীর এক শিক্ষার্থীর সাথে প্রেমের সম্পর্ক ছিল একই এলাকার অনিকের। সম্প্রতি ছাত্রীটি শ্রাবণ নামের আরেক কিশোরের সাথে প্রেমের সম্পর্ক তৈরি করলে ক্ষিপ্ত হয়ে উঠে অনিক। শনিবার রাতে শ্রাবণের বন্ধু জয়কে খাল পাড় এলাকায় আটকে রাখলে তাকে উদ্ধার করতে যান ওয়ার্ড যুবলীগ নেতা লোকমান। এসময় দুই পক্ষের মধ্যে মারামারি সংঘঠিত হয়। এক পর্যায়ে সাইফুল্লাহ নামে অনিকদের এক বড় ভাই কয়েক রাউন্ড গুলি চালায়। এতে গুলিবিদ্ধ হয় লোকমান হোসেন। রাতে গুলিবিদ্ধ লোকমানকে হাসপাতালে আনা হলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

জানা যায়, নিহত লোকমান হোসেন (৩৫), নগরীর গোলপাহাড় এলাকার বাদশা মিয়া রোডের পশুশালা এলাকায় থেকে একটি কুলিং কর্ণারের ব্যবসা করতেন। এছাড়াও নিহত লোকমান হোসেন গোলপাহাড় এলাকার বাগমনিরাম ওয়ার্ড যুবলীগের রাজনীতির সাথে জড়িত।

অন্যদিকে গুলিবর্ষণকারী সাইফুল্লাহ চকবাজার ওয়ার্ড যুবলীগ নেতা নামধারী নুর মোস্তাফা টিনুর অনুসারী হিসেবে এলাকায় পরিচিত। এলাকাবাসী জানিয়েছেন তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে এলাকায় এর আগেও অনেক হতাহতের ঘটনার নেতৃত্ব দিয়েছে সাইফুল ওরফে গুলি সাইফুল। তার বিরুদ্ধে এলাকায় বিভিন্ন অসামাজিক কার্যকলাপে জড়িত ও চাঁদাবাজির একাধিক অভিযোগ রয়েছে। তবে কথিত যুবলীগ নামধারী টিনুর প্রভাবে প্রশাসনও তার ভুমিকায় নিরব ভুমিকা পালন করছে।

 

সাইফুল্লাহ’র কর্মকান্ডে অতিষ্ঠ এলাকাবাসী মনে করেন, চাঁদাবাজি করে আদায়কৃত অর্থ থেকে একটি অংশ যুবলীগ নেতা নামধারী টিনুর কাছে পৌছানো হতো। যার কারণে সাইফুলের নানা অপরাধ কর্মকান্ড আড়ালে থেকে টিনু নেতৃত্ব দিয়ে আসছে।

ওয়ার্ড যুবলীগ নেতা লোকমানের খুনীকে গ্রেফতারের বিষয়ে জানতে চাইলে নগর পুলিশের অতিরিক্ত উপকমিশনার (দক্ষিণ) শাহ মো. আব্দুর রউফ বলেন, ঘটনার পর থেকে সাইফুল্লাহ পলাতক রয়েছে। তাকে গ্রেফতারে শনিবার রাত থেকেই পুলিশ অভিযান পরিচালনা করছে।