বিয়ে করে বাড়ি ফেরার পথে গ্রেপ্তার ধর্ষক

বিএম ডেস্ক : জামালপুরের বকশীগঞ্জ উপজেলায় স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে মনোয়ার হোসেন নামে (২৪) এক ধর্ষককে আটক করেছে পুলিশ। আটকের সময় সে নতুুুন বৌ নিয়ে বরযাত্রীসহ বাড়ি ফিরছিল।

রবিবার (২১ এপ্রিল) দুপুরে তাকে আদালতে সোপর্দ করে পুলিশ।

জানা যায়, শনিবার রাতে বিয়ে করে নতুন বউ নিয়ে বাড়ি ফেরার পথে বরযাত্রীর বহর থেকে উপজেলার সারমারার টালিয়াপাড়া এলাকা থেকে থেকে পুলিশ ধর্ষক মনোয়ারকে আটক করে। সে পাশ্ববর্তী দেওয়ানগঞ্জ উপজেলার দফরপাড়ার রবিউল ইসলামের ছেলে।

স্থানীয় সূত্রে জানাগেছে, গত ১৪ এপ্রিল উপজেলার বগারচর ইউনিয়নের এক স্কুলছাত্রীকে ( চলতি বছর এসএসসি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করেছে) দেওয়ানগঞ্জ উপজেলার দফরপাড়ার রবিউল ইসলামের ছেলে মনোয়ার হোসেন জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। ঘটনা ফাসঁ হয়ে গেলে এই নিয়ে একাধিকবার গ্রাম্য শালিস বৈঠক হয়। কিন্ত বিষয়টির কোনো সমাধান হয়নি।

অপরদিকে সালিশ বৈঠকের নামে নানা রকম টালবাহানা করে অভিযুক্ত মনোয়ার হোসেনের বিবাহ ঠিক হয়। শনিবার রাতে সারমারার টালিয়াপাড়া গ্রামে বিয়ে করতে যায় মনোয়ার হোসেন। সেখানে এক নাবালিকার সাথে বিয়ে হয় তার। এ ঘটনার খবর পেয়ে ২০ এপ্রিল রাতে ভিকটিমের বড় ভাই বকশীগঞ্জ থানায় মনোয়ার হোসেনের বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন।

নতুন বউ নিয়ে নিজ বাড়িতে যাওয়ার পথে বকশীগঞ্জ থানার পুলিশ তাৎক্ষণিক অভিযান চালিয়ে বরযাত্রী বহর থেকে ধর্ষক মনোয়ার হোসেনকে গ্রেপ্তার করে। ওই সময় ধর্ষক মনোয়ার হোসেনের নতুন স্ত্রী ও অন্যান্য বর যাত্রীরা পালিয়ে যায়।

বকশীগঞ্জ থানার ওসি এ কে এম মাহবুব আলম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, রবিবার দুপুরে আটক মনোয়ার হোসেনকে আদালতে সোপর্দ করে ভিকটিমকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য জামালপুর জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

বিএম/রনী/রাজীব

আরো খবর:: নুসরাত হত্যার অন্যতম পরিকল্পনাকারী রানা রাঙ্গামাটিতে গ্রেফতার