আজ চবি’র সাবেক উপাচার্য ইতিহাসবিদ ড. করিমের মৃত্যুবার্ষিকী

আজ আন্তর্জাতিক খ্যাতিমান ইতিহাসবিদ, শিক্ষাবিদ, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য, পশ্চিম বাঁশখালী উপকূলীয় কলেজের প্রতিষ্ঠাতা প্রফেসর ড. আবদুল করিমের ১২ তম মৃত্যুবার্ষিকী।

ড. আবদুল করিম ১৯২৮ সালে বাঁশখালী’র চাপাছড়ি গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি ১৯৫০ সালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ইতিহাস বিষয়ে প্রথম শ্রেণিতে এম.এ, ১৯৫৮ সালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ও ১৯৬০ সালে লন্ডন বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পিএইচডি ডিগ্রি লাভ করেন।

তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ১৯৫১-১৯৬৬ সাল পর্যন্ত শিক্ষকতা করেন। ড. আবদুল করিম ১৯৬৬ সালে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রতিষ্ঠাকালীন সময়ে ইতিহাস বিভাগে যোগ দেন। তিনি ১৯৭৫-১৯৮১ সালে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের দায়িত্ব পালন করেন।

অবসরের পর ১৯৯২-১৯৯৬ চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে ইতিহাস বিভাগের সুপার নিউমারি প্রফেসর, ২০০১ সালে নভেম্বর থেকে আজীবন প্রফেসর ইমেরিটাস ছিলেন। তাঁর উল্লেখযোগ্য গ্রন্থের মধ্যে বাংলার ইতিহাস, মুসলিম বাংলার ইতিহাস ও ঐতিহ্য, বাংলা সাহিত্যের কালক্রম, চট্টগ্রামে ইসলাম, সমাজ ও জীবন, বাঁশখালীর ইতিহাস ও ঐতিহ্য।

তিনি শিক্ষায় একুশে পদক (১৯৯৫), বাংলাদেশ এশিয়াটিক সোসাইটি প্রেসিডেন্টস গোল্ড মেডেল (২০০৬), ইন্ডিয়ান ন্যুমিজমেটিক সোসাইটি’র আকবর সিলভার মেডেল (১৯৬০) সহ দেশ-বিদেশে প্রচুর সম্মাননা লাভ করেন। তিনি হাটহাজারী কলেজ ও পশ্চিম বাঁশখালী উপকূলীয় কলেজের অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা।

বিএম/এমআর