বিশ্বচ্যাম্পিয়নদের ৮৫ রানে অলআউট করে ১২২ রানের লিড আইরিশদের

দুর্দান্ত বোলিংয়ে লর্ডসে চার দিনের টেস্টে ইংল্যান্ডকে প্রথম ইনিংসে ৮৫ রানেই গুটিয়ে দিয়েছিল আয়ারল্যান্ড।

সদ্যই ওয়ানডে বিশ্বকাপ জেতা ইংলিশরা অলআউট হয়েছিল লাঞ্চের আগেই। প্রথম দিনের খেলা শেষ হওয়ার আগে অলআউট হলো আইরিশরাও। তবে ১২২ রানের লিড পেয়েছে দলটি।

বুধবার লর্ডসে চার দিনের একমাত্র টেস্টটিতে টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয় ইংলিশরা। কিন্তু বিশ্বকাপ জয়ের মাত্র দশ দিনের মাথায় ৮৫ রানে অলআউট হয়ে লজ্জায় পুড়ে দলটি। ২২ বছর পর টেস্টে এত কম রানে অলআউট হলো ইংল্যান্ড।

এরপর আয়ারল্যান্ড অলআউট হওয়ার আগে স্কোর বোর্ডে ২০৭ রান যোগ করে। পরে ইংলিশরা দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাটিংয়ে নামলে এক ওভারের বেশি খেলা হয়নি। সেই এক ওভারে স্কোর বোর্ডে কোনো রান যোগ করতে পারেননি দুই ওপেনার জ্যাক লিচ ও রোরি বার্ন।

তিন ইংলিশ সিমার স্টুয়ার্ট ব্রড, ওলি স্টোন ও স্যাম কুরান ৩টি করে উইকেট শিকার করে আইরিশদের স্কোরটা বড় হতে দেয়নি। সফরকারীদের পক্ষে ফিফটি করেন আন্দ্রে বালবির্নি। ৫৫ রান করেন এই ব্যাটার। এ ছাড়া পল স্টার্লিং ৩৬ রান করেন। পাঁচ নম্বরে নেমে কেভিন ও’ব্রায়েন অপরাজিত ছিলেন ২৮ রানে।

এর আগে অ্যাশেজ শুরুর মাত্র এক সপ্তাহ আগে ইংল্যান্ডের করুণ পরিণতির সাক্ষী হয় দর্শক। স্বাগতিকদের পুড়িয়েছে কাউন্টি দল মিডলসেক্সে খেলা পেসার টিম মারতাগ। ৯ ওভার বল করে মাত্র ১৩ রান ব্যয়ে নিয়েছেন ৫ উইকেট। ৩ উইকেটে নিয়েছেন মার্ক আদাইর। ২ উইকেট নেন বয়েড র‌্যাঙ্কিন।

ইংল্যান্ডের পক্ষে ডাবল ফিগারে পৌঁছাতে পেরেছে মাত্র তিন ব্যাটার- জো ডেনলি, শ্যাম কুরান ও অভিষিক্ত অলি স্টোন।

দশ নম্বরে নামা স্টোনের ১৯ রানের জন্যই বলতে গেলে ইংলিশদের স্কোরটা ৮৫ পর্যন্ত গেল। ডেনলি সর্বোচ্চ ২৩ ও কুরান ১৮ রান করেন।

সংক্ষিপ্ত স্কোর :

ইংল্যান্ড :

১ম ইনিংস : ৮৫/১০ (২৩.৪ ওভার)

ডেনলি ২৩;মারতাগ ১৩/৫,আদাইর ৩২/৩

আয়ারল্যান্ড :

১ম ইনিংস :২০৭/১০ (৫৮.২ ওভার)

ব্যালব্রিন ৫৫;কারেন ২৮/৩,স্টোন ২৯/৩

প্রথম দিনের খেলা শেষে ইংল্যান্ড ১২২ রানে পিছিয়ে।

বিএম/এমআর