বুড়িগঙ্গায় লঞ্চডুবির ঘটনায় এখন পর্যন্ত ৩২ জনের লাশ স্বজনদের বুঝিয়ে দেয়া হয়েছে

বাংলাদেশ মেইল :: 

রাজধানীর শ্যামবাজার সংলগ্ন বুড়িগঙ্গায় প্রায় শতাধিক যাত্রীসহ আজ সকালে লঞ্চডুবির ঘটনায় এখন পর্যন্ত ৩২ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গিয়েছে। রাজধানীর সদরঘাটে বুড়িগঙ্গা নদীতে অর্ধশতাধিক যাত্রী নিয়ে একটি লঞ্চ ডুবে গেছে। এ পর্যন্ত ৩২ জনের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। এদের মধ্যে ১৯ জন পুরুষ, ৮ জন নারী এবং ৩ জন শিশুর পরিচয় শনাক্ত করা হয়েছে। বাকি ২ মরদেহ এখনও শনাক্ত করা সম্ভব হয়নি। সকাল নয়টার দিকে আরেকটি লঞ্চের ধাক্কায় এ দুর্ঘটনা ঘটে বলে জানায় প্রত্যক্ষদর্শীরা। এদিকে লঞ্চডুবির ঘটনায় শোক জানিয়েন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ঘটনা তদন্তে গঠন করা হয়েছে তদন্ত কমিটি।

ফায়ার সার্ভিসের কর্মকর্তা শাহজাহান শিকদার জানান, এখন পর্যন্ত ঘটনাস্থল থেকে ৩১ জনের মৃতদেহ উদ্ধার করা সম্ভব হয়েছে। লাশগুলোকে রাজধানীর মিডফোর্ড হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

ফায়ার সার্ভিসের ডিউটি অফিসার জানান, মুন্সিগঞ্জ থেকে ঢাকাগামী ‘মর্নিং বার্ড’ নামের লঞ্চটির সাথে ‘ময়ূর-২’ নামক আরেকটি লঞ্চের ধাক্কা লাগে, সকাল ৯.৩০ এ অন্তত ১৫০ জন যাত্রীসহ ডুবে যায়, প্রত্তক্ষদর্শীদের মতে অন্তত ৫০ জন যাত্রী সাঁতরে নিরাপদ স্থানে পৌছাতে সক্ষম হন। খবর পাওয়া মাত্র ফায়ার সার্ভিসের একটি দল দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌছে উদ্ধার কাজ শুরু করেন।