চট্টগ্রামে মানব সেবায় অনন্য এ.বি.এম মহিউদ্দিন চৌধুরী ফাউন্ডেশন- সুজন

বাংলাদেশ মেইল ::

   চট্টগ্রামে করোনা পরিস্থিতি অবনতি হওয়ার সাথে সাথেই মানবতার সেবায় এগিয়ে এসে অনন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে আলহাজ্ব এ.বি.এম মহিউদ্দীন চৌধুরী ফাউন্ডেশন। আজ বুধবার (৮ই জুলাই) বেলা সাড়ে ১২টায় নগরীর বাদামতলীস্থ আগ্রাবাদ কনভেনশন হল সম্মুখস্থ ময়দানে আলহাজ্ব এ.বি.এম মহিউদ্দিন চৌধুরী ফাউন্ডেশন ডবলমুরিং জোন কর্তৃক আয়োজিত বিনামূল্যে চিকিৎসা, অক্সিজেন, ওষুধ এবং পুষ্টিকর খাবার বিতরণ কর্মসূচীতে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ মন্তব্য করেন চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সহ- সভাপতি খোরশেদ আলম সুজন।

এ সময় জনাব সুজন বলেন, বাংলাদেশে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ শুরু হওয়ার সাথে সাথেই বেসরকারি হাসপাতাল এবং ক্লিনিকে চিকিৎসা সেবা বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। এতে করে কোভিড নন কোভিড উভয় শ্রেণীর রোগীরা চরম বেকায়দায় পড়েছে। দেখা যাচ্ছে যে সামান্য জ্বর, সর্দি-কাশির মতো লক্ষণ নিয়ে এক হাসপাতাল থেকে অন্য হাসপাতালে ঘুরেও কোন চিকিৎসা সেবা পাওয়া যাচ্ছে না। এমতাবস্থায় সাধারণ জনগনের পাশে ত্রাণকর্তা হিসেবে আবির্ভূত হয়েছেন মহামান্য হাইকোর্ট। ইতিমধ্যে মহামান্য হাইকোর্ট স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের প্রতি বেশ কিছু নির্দেশনাও প্রদান করেছেন। হাইকোর্টের নির্দেশনাসমূহ দ্রুততার সাথে বাস্তবায়ন করে জনগনের চিকিৎসাসেবায় কার্যকরী পদক্ষেপ গ্রহণ করার জন্য স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের প্রতি আহবান জানান তিনি। তিনি আরো বলেন চট্টগ্রামে করোনা পরিস্থিতির অবনতি হওয়ার সাথে সাথে জনগনের পাশে এসে দাড়িয়েছে আলহাজ্ব এ.বি.এম মহিউদ্দিন চৌধুরী ফাউন্ডেশন। এ ফাউন্ডেশনের সদস্যগণ নগরীর বিভিন্ন এলাকায় দুস্থ, অসহায় ও গরীবদের মাঝে ধারাবাহিভাবে ত্রাণ বিতরনের পাশাপাশি বিভিন্ন মানবতার কাজে নিজেদের নিয়োজিত করেছেন যা উল্লেখ করার মতো। বর্তমান পরিস্থিতিতে তারা জনগনের স্বাস্থ্য সেবাকে অধিকতর গুরুত্ব দিয়ে বিনামূল্যে চিকিৎসা সেবা, অক্সিজেন সরবরাহ, প্রয়োজনীয় ওষুধ এবং পুষ্টিকর খাবার বিতরণ কর্মসূচী চালু করেছে। তিনি ফাউন্ডেশনের সকল সদস্যকে মানবিকতার কাজে নিজেকে নিয়োজিত রাখায় ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন এবং পাশাপাশি অন্যদেরও এদের অনুসরণ করার আহবান জানান।

কর্মসূচীর মূল উদ্যোক্তা এবং উদ্বোধক চট্টগ্রাম কেন্দ্রীয় কারাগারের বেসরকারি কারা পরিদর্শক ও সাবেক কেন্দ্রীয় ছাত্রনেতা আজিজুর রহমান আজিজ বলেন, চট্টগ্রামের মানবিকতার উৎকৃষ্ট উদাহরণ সাবেক মেয়র আলহাজ্ব এ.বি.এম মহিউদ্দিন চৌধুরীর রাজনৈতিক আদর্শকে ধারণ করাই এ ফাউন্ডেশনের মূল উদ্দেশ্যে। তিনি যেভাবে চট্টগ্রামবাসীর বিপদে আপদে নিজের সবটুকু উজাড় করে দিতেন ঠিক এ ফাউন্ডেশনের সকল সদস্যদেরও সবসময় মানবিকতার কল্যাণে ঝাঁপিয়ে পড়ার মানসিকতা নিয়ে কাজ করতে হবে। করোনা আক্রমনের প্রথম দিন থেকেই এ ফাউন্ডেশনের সদস্যরা নিজের জীবন বিপন্ন করে এলাকায় এলাকায় ত্রাণ বিতরণ কার্যক্রমে নিয়োজিত ছিলেন। এছাড়া মাস্ক, হ্যান্ড স্যানিটাইজার এবং স্যাভলন সহ স্বাস্থ্য সুরক্ষা সামগ্রীও বিতরণ করা হয়েছে ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে। বর্তমানে আমরা নগরীর প্রতিটি এলাকায় জোন ভিত্তিক বিনামূল্যে চিকিৎসা সেবা, অক্সিজেন সরবরাহ, প্রয়োজনীয় ওষুধ এবং পুষ্টিকর খাবার বিতরণ কর্মসূচী চালু করেছি। ধাপে ধাপে নগরীর প্রতিটি জোনে এ কর্মসূচী চলবে। তিনি নগরবাসীকে যে কোন সমস্যায় এ ফাউন্ডেশনের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ জানান।

ডবলমুরিং থানা ছাত্রলীগের সভাপতি ফরহাদ সায়েম এর সভাপতিত্বে এবং ইসলামিয়া বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক মীর মোঃ ইমতিয়াজ এর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সাবেক কাউন্সিলর জাবেদ নজরুল ইসলাম, মহানগর ছাত্রলীগের সভাপতি ইমরান আহমেদ ইমু, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক রনি মির্জা, মহিলা কাউন্সিলর ফারহানা জাবেদ। অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন মোরশেদ আলম, নাজমুল আলম, এহতেশামূল আলম জিসান, সাজ্জাদ হোসেন, নাজমুল শুভ, মোঃ নাদিম, আশীষ সরকার নয়ন প্রমূখ।