টেকনাফ সীমান্তে এক লাখ ৩০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার

বাংলাদেশ মেইল :: 

কক্সবাজারের টেকনাফ সীমান্তে এক লাখ ৩০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করেছে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)। এসময় ইয়াবা পাচারকারী কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি বলে জানায় বিজিবি।

মঙ্গলবার (২৮ জুলাই) সন্ধায় ৬টার দিকে টেকনাফস্থ ২ বিজিবি ব্যাটলিয়ান অধিনায়ক লে. কর্নেল মোহাম্মদ ফয়সল হাসান খান এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, মঙ্গলবার রাতে টেকনাফের হ্নীলা নোয়াপাড়া নাফ নদীর সীমান্ত দিয়ে মিয়ানমার থেকে একটি ইয়াবার বড় চালান পাচারের গোপন সংবাদে বিজিবির একটি দল নোয়াপাড়ার কেওড়া বাগানে অবস্থান নেয়। এর কিছুক্ষণ পর দু’জন ইয়াবা কারবারিকে সাঁতরে মিয়ানমার থেকে বাংলাদেশে প্রবেশ করে কেওড়া বাগান সংলগ্ন নাফ নদীর তীর দিয়ে ভূমিতে উঠতে দেখে দূর থেকে বিজিবি তাদের চ্যালেঞ্জ করে। বিজিবির উপস্থিতি টের পেয়ে পাচারকারীরা জঙ্গলে ঢুকে দ্রুতগতিতে ইয়াবার একটি বস্তা কাদার ভেতর লুকিয়ে রেখে পালিয়ে যায়। পরে বিজিবির টহলদল সেখানে পৌঁছে কেওড়া বাগানে তল্লাশি চালায়। এসময় ইয়াবা কারবারিদের কাদার ভেতর লুকিয়ে রাখা ইয়াবার বস্তাটি খুঁজে পান বিজিবি সদস্যরা। সেখান থেকে ১ লাখ ৩০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। উদ্ধার ইয়াবার আনুমানিক মূল্য ৩ কোটি ৯০ লাখ টাকা বলে ধারণা বিজিবির।

লেফটেন্যান্ট কর্নেল মোহাম্মদ ফয়সল হাসান খান আরও জানান, উদ্ধার করা ইয়াবাগুলো ব্যাটালিয়ন সদর দফতরে জমা রাখা হয়েছে যা পরবর্তীতে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সামনে ধ্বংস করা হবে