কলকাতা মেডিকেলের চার তলা থেকে ঝাঁপ দিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করোনা রোগীর

বাংলাদেশমেইল: কলকাতা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের সুপার স্পেশালিটি বিল্ডিংয়ে কোভিড ওয়ার্ডের জানলার কাচ অক্সিজেন সিলিন্ডার দিয়ে ভেঙে, চার তলা থেকে ঝাঁপ দেওয়ার চেষ্টা করলেন এক করোনা রোগী। তবে ঝাঁপ দেওয়ার ঠিক আগে স্বাস্থ্যকর্মীদের তৎপরতায় কলকাতা মেডিকেল কলেজে ভর্তি ওই রোগীকে বাঁচানো গিয়েছে।

শনিবার সকালে ঘটনাটি ঘটেছে কলকাতা মেডিকেল কলেজে। ওই হাসপাতালের সুপার স্পেশালিটি বিল্ডিংয়ে করোনা রোগীদের চিকিৎসা চলছে। সেখানে ভর্তি উত্তর ২৪ পরগনার অশোকনগরের এক বাসিন্দা। তার আগে আলিপুরের একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন তিনি। সেখানে তাঁর কোভিড রিপোর্ট পজিটিভ আসে। নিউমোনিয়ার কারণে ফুসফুসে সংক্রমণ ধরা পড়ে। তাঁর শারীরিক পরিস্থিতির অবনতি হচ্ছে বলেও ওই বেসরকারি হাসপাতালটির তরফে জানানো হয়। সেখানে লক্ষাধিক টাকার বেশি বিল হওয়ায় তাঁকে শেষপর্যন্ত মেডিকেলে স্থানান্তরিত করা হয়। তার পরই এ দিন সকাল সাড়ে সাতটা নাগাদ হঠাৎ অক্সিজেন সিলিন্ডার দিয়ে মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের জানলার কাচ ভাঙার চেষ্টা করেন তিনি।

সে দৃশ্য দেখে ছুটে আসেন স্বাস্থ্যকর্মীরা। ওই রোগীকে বাগে আনতে গিয়ে রীতিমতো হিমশিম খেতে হয় তাঁদের। খবর যায় পুলিশে। তারাও ঘটনাস্থলে পৌঁছয়। এই ঘটনায় রীতিমতো হুলস্থুল পড়ে যায় হাসপাতাল চত্বরে। বেসরকারি হাসপাতালের বিল নিয়ে ওই রোগী মানসিক অবসাদে ভুগছিলেন, বলে মনে করা হচ্ছে। এই ঘটনার পর হাসপাতালে নিরাপত্তার বিষয়ে আরও জোর দেওয়া হচ্ছে। রোগী কল্যাণ সমিতির চেয়ারম্যান নির্মল মাজি জানান, ওই বেসরকারি হাসপাতালে অনেক টাকা বিল হয়েছিল। এ নিয়ে লিখিত অভিযোগ করা হলে, প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ করা হবে বলেও জানান তিনি।