সবার আগে করোনার টিকার প্যাটেন্ট অনুমোদন চীনের

বাংলাদেশ মেইল ::

টিকা বিষয়ক বিশেষায়িত প্রতিষ্ঠান ক্যানসিনো বায়োলজিকস ইনকরপোরেশনকে প্রথমবারের মতো একটি করোনা ভাইরাসের প্যাটেন্ট অনুমোদন দিয়েছে বেইজিং। রাষ্ট্রীয় মিডিয়াকে উদ্ধৃত করে বার্তা সংস্থা রয়টার্স বলছে, করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে টিকা এডি৫-এনসিওভি এর প্যাটেন্ট অনুমোদন দেয়া হয়েছে। রোববার চীনের রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন পত্রিকা পিপলস ডেইলি রিপোর্ট করে যে, এমন টিকার প্যাটেন্ট অনুমোদনের ঘটনা চীনে এটা প্রথম। চীনের ন্যাশনাল ইন্টেলেকচুয়াল প্রপাার্টি এডমিনিস্ট্রেশনকে উদ্ধৃত করে এই রিপোর্ট দেয়া হয়েছে। এতে বলা হয়েছে, এই প্যাটেন্ট অনুমোদন দেয়া হয়েছে ১১ই আগস্ট। ওদিকে সৌদি আরব বলেছে, ক্যানসিনোর টিকার তৃতীয় পর্যায়ের ক্লিনিক্যাল পরীক্ষা শুরু হবে এ মাসে। এ ছাড়া একই পরীক্ষার জন্য রাশিয়া, ব্রাজিল ও চিলির সঙ্গে আলোচনা করছে ক্যানসিনো। এ খবরের পর সোমবার সকালেই ক্যানসিনোর শেয়ারের দাম হংকংয়ে বেড়ে গেছে শতকরা প্রায় ১৪ ভাগ।

দিনের মধ্যভাগে সাংহাইয়ে এই শেয়ারের দাম বৃদ্ধি পায় শতকরা ৬.৬ ভাগ। ওদিকে চায়না গ্লোবাল টেলিভিশন নেটওয়ার্ক (সিজিটিএন) বলেছে, চীনে আভ্যন্তরীণভাবে উৎপাদিত টিকা সৃষ্টিশীল। চীন যে করোনা ভাইরাসের টিকা উৎপাদন করছে তাতে আন্তর্জাতিক বাজারে আস্থা বৃদ্ধি পাবে। এই টিকাটি আবিষ্কার করছে যৌথভাবে চীনের বায়োফার্মাসিউটিক্যাল প্রতিষ্ঠান ক্যানসিনো এবং এতে নেতৃত্বে আছেন চীনের সামরিক সংক্রামক বিষয়ক বিশেষজ্ঞ চেন ওয়েই। চীনের ন্যাশনাল ইন্টেলেকচুয়াল প্রপার্টি এডমিনিস্ট্রেশনের ওয়েবসাইটে বলা হয়েছে, অল্প সময়ের ব্যবধানে ব্যাপকভাবে উৎপাদন করা যাবে এই টিকা। ক্যানসিনো রোববার এক বিবৃতিতে বলেছে, বেইজিং প্যাটেন্ট অনুমোদন দেয়ায় এই টিকার কার্যকারিতা, নিরাপত্তা নিয়ে আরো নিশ্চয়তা মিলেছে।