রাশিয়া থেকে ১০ কোটি ডোজ ভ্যাকসিন কিনছে ভারত

বাংলাদেশ মেইল ::

ভারতকে করোনা ভাইরাসের ১০ কোটি ডোজ ভ্যাকসিন দেয়ার কথা জানিয়েছে রাশিয়া। ভারতীয় ঔষধ কোম্পানি ‘ড. রেডিস ল্যাবোরেটরিস’ রাশিয়া থেকে এই ভ্যাকসিন আমদানি করবে। প্রথম থেকেই নিজ দেশে তৈরি স্পুটনিক-৫ ভ্যাকসিন বিদেশে রপ্তানিতে আগ্রহী ছিল রাশিয়া। যদিও এ ভ্যাকসিন নিয়ে পশ্চিমা বিশ্বে সমালোচনা চলছেই। এরইমধ্যে বুধবার রাশিয়া ভারতে তাদের ভ্যাকসিন রপ্তানির বিষয়টি নিশ্চিত করেছে। এ খবর দিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।
এর আগে রাশিয়ার ‘ডিরেক্ট ইনভেস্টমেন্ট ফান্ড’ বা আরডিআইএফ ভারতীয় প্রস্তুতকারকদের সঙ্গে একটি চুক্তি স্বাক্ষর করেছে। চুক্তি অনুযায়ী, ভারতীয় কোম্পানিগুলো নিজ দেশেই ৩০ কোটি ডোজ স্পুটনিক-৫ ভ্যাকসিন উৎপাদন করতে পারবে।

এর আগে রাশিয়া থেকে তেল ও অস্ত্র আমদানি করতো ভারত। এবার বাণিজ্যের আরো একটি বড় ক্ষেত্র সৃষ্টি করলো করোনার ভ্যাকসিন। ড. রেডি’স ভারতের সবথেকে বড় ঔষধ প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠানগুলোর একটি।
সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন, আগামী বছরের প্রথম দিকেই রাশিয়া থেকে ভ্যাকসিন আমদানি শুরু করবে ভারত। এর আগে কিছু বিষয়ে অনুমোদন নিশ্চিত করতে হবে। বিশ্বের প্রথম করোনা ভাইরাসের কার্যকরি ভ্যাকসিন আবিষ্কার করে রাশিয়া। তবে এই ভ্যাকসিনের তৃতীয় ধাপের পরীক্ষা বাদ দিয়েই এটিকে অনুমোদন দেয়া হয়েছিল। ফলে পশ্চিমা বিশ্বে এ নিয়ে নানা বিতর্ক শুরু হয়। তবে রাশিয়ার বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন, অনুমোদনের পর এই ভ্যাকসিন প্রয়োগ করাদের মধ্যে এর কার্যকারিতার প্রমাণ পাওয়া গেছে। তাই ভারতীয় আমদানিকারকরা মনে করছেন, স্পুটনিক-৫ এ মুহুর্তে ভারতের কোভিড-১৯ মোকাবেলায় বড় অস্ত্র হতে পারে।
এখন পর্যন্ত এই ভ্যাকসিনের কোনো দাম নির্ধারণ করা হয়নি। রাশিয়া জানিয়েছে, তারা এই ভ্যাকসিন বিক্রি করে লাভ করতে চায়না। শুধুমাত্র উৎপাদন খরচটিই তারা তুলবে। বিশ্বজুড়ে প্রায় ৪০ হাজার মানুষের দেহে স্পুটনিক-৫ প্রয়োগ করা হয়েছে।