বার কাউন্সিলের লিখিত পরীক্ষা ১৯ ডিসেম্বর

বাংলাদেশ মেইল ::

আইনজীবীদের অন্তর্ভুক্তির জন্যে বাংলাদেশ বার কাউন্সিলের লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে আগামী ১৯ ডিসেম্বর। বুধবার (২৫ নভেম্বর) বিকেলে বার কাউন্সিলের এনরোলমেন্ট কমিটির বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। বার কাউন্সিলের সচিব রফিকুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে গত ২৬ সেপ্টেম্বর এ লিখিত পরীক্ষা স্থগিত করা হয়। জানা গেছে, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ও বুয়েট পরীক্ষার জন্য ভেন্যু না দেওয়ায় এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

আগে শুধু মৌখিক পরীক্ষার (ভাইভা) মাধ্যমে আইনজীবীদের সনদ দেওয়া হতো। তবে শিক্ষার্থীদের চাপ বাড়তে থাকায় আইনজীবী হতে হলে এখন নৈর্ব্যক্তিক, লিখিত ও মৌখিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হতে হয়। আবার ওই তিন ধাপের যেকোনো একটি পরীক্ষায় শিক্ষার্থীরা একবার উত্তীর্ণ হলে পরে পরীক্ষায় তারা দ্বিতীয় ও শেষবারের মতো অংশ নেওয়ার সুযোগ পান।

দ্বিতীয়বারও অনুত্তীর্ণ হলে তাদের শুরু থেকেই পরীক্ষায় অংশ নিতে হয়। সে অনুসারে ২০১৭ সালের ৩৪ হাজার শিক্ষর্থীর মধ্যে থেকে লিখিত পরীক্ষায় দ্বিতীয় ও শেষবারের মতো বাদ পড়া ৩ হাজার ৫৯০ শিক্ষার্থী এবং ২০২০ সালে প্রায় ৭০ হাজার শিক্ষানবিশ আইনজীবীর মধ্যে এমসিকিউ উত্তীর্ণ ৮ হাজার ৭৬৪ শিক্ষার্থীসহ মোট ১২ হাজার ৮৫৮ জন সনদ প্রত্যাশী লিখিত পরীক্ষায় অংশ নেবেন।