ডাঃ শাহাদাতের নির্বাচনী প্রচারণায় হামলার অভিযোগ

বাংলাদেশ মেইল ::

চসিক নিবার্চনে বিএনপির মেয়র প্রার্থী ডাঃ শাহাদাত হোসেনের নিবার্চনী প্রচারণার দ্বিতীয় দিনে নগরীর তিনটি স্থানে সন্ত্রাসী হামলার ঘটনা ঘটেছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

ডা. শাহাদাতের নির্বাচনী মিডিয়া সেলের প্রধান নগর বিএনপির সাবেক সহ দপ্তর সম্পাদক ইদ্রিস আলী  এ তথ্য জানায়।

তিনি জানান, আজ শনিবার (৯ জানুয়ারী) সকাল ১১.৩০ মিনিটে ১৫ নং বাগমনিরাম ওয়ার্ডের পল্টন মোড়ে বিএনপি প্রার্থী ডা: শাহাদাত হোসেনের নির্বাচনী পোষ্ঠার লাগানোর সময় আওয়ামী সন্ত্রাসীরা ধানের শীষের পোষ্ঠার ছিড়ে ফেলে। ধানের শীষ সমর্থিত নেতা-কমীর্দের উপর হামলা করে মোবাইল ছিনতাই করে এবং পোস্টার বহনকারী ভ্যান গাড়ীটি নিয়ে যায়, যা এখন পযন্তর্ ফেরত দেয়নি।

দুপুর ১২ টায় ২৬ নং দক্ষিণ হালিশহর ওয়ার্ডের হালিশহর বি ব্লক এলাকায় মহিলা সমাবেশে মেয়র প্রার্থী ডা: শাহাদাত হোসেন করোনা মহামারী প্রকোপ থেকে স্বাস্থ্য সুরক্ষা পেতে গণসচেতনামূলক মাস্ক ও হ্যান্ড স্যানিটাইজার বিতরণ শেষে স্থান ত্যাগ করার পর, নৌকা সমর্থিত সন্ত্রাসীরা চট্টগ্রাম মহানগর মহিলা দলের যুগ্ম সম্পাদিকা আঁখি সুলতানা সহ মহিলা দলের কমীর্দের গায়ে হাত দিয়ে শারীরিক ভাবে লাঞ্চিত করে এবং তাদের মোবাইল ছিনিয়ে নিয়ে ভাঙচুর করে।

ইদ্রিস আলী আরও জানান, ৩৫ নং বক্সির হাট ওয়ার্ডে দুপুর ২ টায় খাতুনগঞ্জ এলাকায় ওয়ার্ড বিএনপির নেতৃবৃন্দের সাথে ডাঃ শাহাদতে হোসেনের নিবার্চন পরিচালনা কমিটির সাথে নিবার্চন কার্যক্রম বিষয় নিয়ে মত বিনিময় কালে পুলিশ ও ডিবি তাঁদেরকে ঘেরাও করে ফেলে। এতে এলাকার লোকজন ও ভোটাদের মধ্যে ভীতি সঞ্চার হয়।

এছাড়া ও বিকাল ৪.৩০ মিনিটে ১৮ নং পূর্ব বাকলিয়ার ওয়াজাইর পাড়ায় সি.এন.জি করে ডা. শাহাদাত হোসেনের নির্বাচনী প্রচার মাইকে সন্ত্রাসী হামলা করে এবং সিএনজি গাড়ি ভাঙ্গচুর করে।উক্ত সন্ত্রাসী হামলায় ছাত্রদল কমীর্ আহমেদ, যুবদল কমীর্ মোহাম্মদ ফারুক ও সিএনজি চালক জাকের হোসেন গুরুতর আহত হয়।