মহান মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস নতুন প্রজন্মের কাছে ছড়িয়ে দিতে হবেঃ ড. অনুপম সেন

বাংলাদেশ মেইলঃঃ

 

বিশিষ্ট সমাজ বিজ্ঞানী ও প্রিমিয়াম বিশ্ববিদ্যালয় উপচার্য ড. অনুপম সেন বলেছেন, মুক্তিযুদ্ধ ও স্বাধীনতার হাত ধরে বাংলাদেশের জন্ম বাঙ্গালীর সংগ্রামের দীর্ঘ ইতিহাস রয়েছে। স্বাধিকারের জন্য আতœত্যাগ হয়েছে বহুবার। সর্বোপরি জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে বাংলাদেশের জন্ম। বাঙ্গালী, বাংলা ও মুক্তিযুদ্ধ একটি অপরটির পরিপূরক সঠিক ইতিহাস তুলে ধরেই প্রজন্মের কাছে মশাল জ্বালাতে হবে।

গত ২২ জানুয়ারি বিকাল ৩ টায় চট্টগ্রাম প্রেসকাবের ইঞ্জিনিয়ার আব্দুল খালেক মিলনায়তনে মুক্তিযুদ্ধের চেতনার সংগঠন বিজয়’৭১ এর ৯ম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী, অভিষেক ও সংর্বধনা অনুষ্ঠানে শারীরিকভাবে অসুস্থ থাকার কারণে অডিওতে অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে ভার্চুয়্যাল বার্তার মাধ্যমে তিনি এসব কথা বলেন। বিজয়’৭১ এর প্রতিষ্ঠাতা সাধারণ সম্পাদক লায়ন ডাঃ আর কে রুবেল এর সঞ্চালনায় মুক্তিযোদ্ধা সংসদ মহানগর কমান্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা মোজাফফর আহমেদ এর সভাপতিত্বে প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, মুক্তিযোদ্ধা গবেষক কেন্দ্রের চেয়ারম্যান ডাঃ মাহফুজুর রহমান। সংবর্ধিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, একুশে পদক প্রাপ্ত প্রফেসর ড. বিকিরণ প্রসাদ বড়ুয়া, বেগম রোকেয়া পদক প্রাপ্ত চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় উপচার্য ড. শিরিন আক্তার, মহানগর আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহসভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা নঈম উদ্দিন চৌধুরী, গেরিলা মুক্তিযোদ্ধা ফজল আহমেদ, বিজি এপি এম ই এর ১ম সহ-সভাপতি খন্দকার লতিফুর রহমান আজিম, বীর মুক্তিযোদ্ধা আবদুল মতিন, বিজয়’৭১ এর সভাপতি নাট্যজন ও সাংস্কৃতিক সংগঠক সজল চৌধুরী, বাংলাদেশ হিউম্যান রাইটস এন্ড প্রেস সোসাইটির সহ-সভাপতি আশিক বিন সাফা, নজরুল গবেষক এম এ সবুর, দিদারুল আলম দিদার, পরিমল কান্তি ধর।

এসময় উপচার্য ড. শিরিন আক্তার বলেন, বাঙ্গালী স্থপতি জাতির জনকের স্বপ্ন বাস্তবায়নে কাজ করে যাচ্ছি। প্রধানমন্ত্রী যে দায়িত্ব অর্পন করেছেন তা যথাযথ ভাবে পালন করা আমার ল্য। চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ঐতিহ্য রায় তরুণ প্রজন্মকে ইতিহাস চর্চার উপর গুরুত্ব আরোপে তিনি আহ্বান জানান। প্রধান বক্তা ডাঃ মাহফুজুর রহমান বলেন, আমাদের কর্মেেত্র বিজয়’৭১ কে সাথে নিয়ে সব জায়গায় বাংলা চালু করতে হবে। এখনও অনেক স্থানে স্থাপনার নাম সাইনবোর্ডে ইংরেজি ফলকে আছে। তিনি আগামী ২১ ফেব্রুয়ারির মধ্যে এগুলো অপসারণের জন্য কর্তৃপরে প্রতি আহ্বান জানান। তিনি বিজয়’৭১ এর সদস্যদের আগামীতে এর জন্য একযোগে মাঠে নামতে বলেন। এসময় তিনি বিজয়’৭১ এর নব নির্বাচিত ২০২০-২১ কমিটির ঘোষণা দেন। এতে নাট্যজন ও সাংস্কৃতিক সংগঠক সজল চৌধুরী কে সভাপতি ও কুতুবউদ্দিনকে সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত করে ৭১ সদস্য কমিটির ঘোষণা করেন। এসময় নব নির্বাচিত কমিটি কে শপথ পাঠ করান বীর মুক্তিযোদ্ধা মোজাফফর আহমেদ।

অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বীর মুক্তিযোদ্ধা শ্যামল মিত্র, ভানু রঞ্জন চক্রবর্তী, বাদশা মিয়া, রাখাল চন্দ্র ঘোষ, ডা: মো: কামাল উদ্দিন, এস এম লিয়াকত হোসেন, অমর দত্ত, অনিমা কামাল, শেলী বড়–য়া, দেবু প্রসাদ দাশ, সংগঠনের সহ-সভাপতি অধ্যাপিকা রেখা আলম চৌধুরী, জসিম উদ্দিন চৌধুরী, মো: আবদুন নুর, নবনির্বাচিত সাধারণ সম্পাদক মো: কুতুব উদ্দিন, শিক্ষিকা নীলা বোস, এস বি জীবন, লায়ন আবু সালেহ, ডা: মনির আজাদ, ডা: এস কে পাল সুজন, সন্দীপন মান্না, এস এম কামরুজ্জামান, মো: সেলিম, বেলাল হোসেন উদয়ন, এড. অজয় বোস রিংকু, ডা: অপূর্ব ধর, নুরু উদ্দিন জয়, ইলিয়াস রিপন, খোকন মজুমদার রাজীব, মো: আনিসুর রহমান ফরহাদ, উত্তম কুমার দত্ত, সাজ্জাদ হোসেন, . , তারেক হোসেন পিকলু, মৃনাল কান্তি দাশ, শিল্পী বসাক, লাকী আক্তার, ডা: মুজিবুল হক চৌধুরী, অধ্যাপক মো: সোলাইমান কাশেমী, ডা: কানু দাশ, সামশুল হায়দার তুষার, সমীরণ পাল, মো: খোরশেদ আলম রিফাত, রেজা মোহাম্মদ জামশেদ, রোপী দাশ, সুদীপ্ত সিকদার, সবিতা বিশ্বাস, দীপ্তি রক্ষিত, শাহীন ফেরদৌস, শবনম ফেরদৌস, ডা: মোহাম্মদ বশর, আবু তাহের, আরাফাত রহমান, মোশারফ হোসেন সরকার, মো: ইলিয়াস, মিনহাজুল ইসলাম, ওমর ফারুক, মো: শফিউল আলম টিপু, নেপাল চৌধুরী, জেসমিন সুলতানা জুই প্রমুখ। অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় পর্বে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক শুরু হলে অনুষ্ঠানে বিভিন্ন শিল্পীরা গান পরিবেশন করা হয়।