২০ বিশিষ্ট নাগরিকের বিবৃতি পুলিশের গুলিতে মৃত্যুর ঘটনায় নিন্দা, উদ্বেগ

বাংলাদেশ মেইল ::

দেশের ২০ জন বিশিষ্ট নাগরিক এক বিবৃতিতে অভিযোগ করেছেন, বাংলাদেশের স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী সরকার সংকীর্ণভাবে ও দলীয় দৃষ্টিকোণ থেকে উদযাপন করেছে। এ ছাড়া ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে নিয়ে বিতর্ক থাকায় তাঁকে বাদ দিয়ে ভারতের প্রেসিডেন্টকে আমন্ত্রণ জানানো সংগত হতো বলেও তারা মনে করেন। শনিবার গণমাধ্যমে পাঠানো বিবৃতিতে বলা হয়, গতকাল ছিল বাংলাদেশের স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী। এই গৌরবময় দিনটি সরকার সংকীর্ণভাবে ও দলীয় দৃষ্টিকোণ থেকে উদযাপন করেছে। দিবসটি উদযাপন উপলক্ষে বাংলাদেশ সরকারের পক্ষ থেকে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিসহ কয়েকজন রাষ্ট্রপ্রধান ও সরকারপ্রধানকে আমন্ত্রণ জানানো হয়। ১৯৭১ সালে বাংলাদেশের স্বাধীনতাযুদ্ধে ভারতের সাহায্য বা সহযোগিতার কথা মনে রেখে ভারতের কোনো উপযুক্ত প্রতিনিধিকে এই দিবস উদযাপন উপলক্ষে আমন্ত্রণ করা প্রত্যাশিত ছিল। ভারতের বর্তমান প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে বিরাজমান বিভিন্ন বিতর্কের কারণে ভারতের রাষ্ট্রপতিকে আমন্ত্রণ জানানো হলে তা সংগত হতো।
বিবৃতিদাতারা মনে করেন, বাংলাদেশ বিরোধী বিভিন্ন কর্মকা- বক্তব্যের অভিযোগে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বাংলাদেশে আসার প্রতিবাদ করার অধিকার বাংলাদেশের নাগরিকদের রয়েছে।