সরকার ঘোষিত বিধি নিষেধ কার্যকরে জেলা প্রশাসনের অভিযান

নিজস্ব প্রতিবেদক

নগরীতে করোনা মোকাবিলায় সরকার ঘোষিত বিধি নিষেধ শতভাগ কার্যকর করার লক্ষ্য ১৩ টিমের ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করেছে জেলা প্রশাসন। এ সময় ২৮ মামলায় ৭৬৫০ টাকা জরিমানা করা হয়।

ররিবার নগরীর হালিশহর,পতেঙ্গা ইপিজেড ও বন্দর পাচলাইশ ও চকবাজার,চান্দগা বাকলিয়া, ইপিজেড ও বন্দর,নিউমার্কেট, রিয়াজুদ্দিন, পাঁচলাইশ ও ,বায়েজিদ ও চান্দগাও, পাহাড়তলী ও আকবরশাহ, সিআরবি ও কাজির দেউড়ী এলাকায় অভিযান পরিচালনা করা হয়।

এ সময় নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ সোহেল রানা নগরীর হালিশহর এলাকায় মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করার সময় বিভিন্ন দোকান ও শপিং মলে দোকান মালিক সমিতি ও সাধারণ মানুষ কে স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলতে নির্দেশনা প্রদান করেন এবং সচেতনতার লক্ষ্যে জেলা প্রশাসনের পক্ষে মাস্ক বিতরণ করেন।

মুরাদ পতেঙ্গা ইপিজেড ও বন্দর এলাকায় ম্যাজিস্ট্রেট এহসান মোবাইল কোর্ট পরিচালনা কালে ২ টি মামলায় ৭০০ টাকা অর্থদণ্ড আদায় করেন।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নিবেদিতা চাকমা নগরীর পাচলাইশ বাকলিয়া ও চকবাজার
এলাকায় মোবাইল কোর্ট পরিচালনা কালে ৪ টি মামলায় ৩০০ টাকা অর্থদণ্ড আদায় করেন।

চান্দগাও ও বাকলিয়া এলাকায় নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মুহাম্মদ ইনামুল হাছান মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করার সময় জনসাধারণ ও ব্যবসায়ীদের সরকারি আদেশ মেনে চলার ব্যাপারে নির্দেশনা প্রদান করেন এবং জেলা প্রশাসনের পক্ষে মাস্ক বিতরণ করেন।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ মোজাম্মেল হক চৌধুরী নগরীর ইপিজেড ও বন্দর এলাকায় মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করার সময় ৪ টি মামলায় ২ হাজার টাকা অর্থদণ্ড আদায় করেন এবং স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলার ব্যাপারে জনসাধারণ ও ব্যবসায়ীদের সচেতন করেন।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ উমর ফারুকের নেতৃত্বে পরিচালিত অভিযানে নগরীর নিউমার্কেট, রিয়াজুদ্দিন বাজার ও বিভিন্ন শপিং মলে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করার সময় ৩ টি মামলায় ৫০০ টাকা অর্থদণ্ড আদায় করেন এবং সরকারি আদেশ মেনে চলার ব্যাপারে নির্দেশনা প্রদান করেন।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ মাসুদ রানা পাঁচলাইশ ও চকবাজার এলাকায় মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করার সময় ২ টি মামলা দায়ের করে ৭০০ টাকা অর্থদণ্ড আদায় করেন। এছাড়াও সাধারণ মানুষের মাঝে মাস্ক বিতরণ করেন।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রেজওয়ানা আফরিন শহরের বায়েজিদ ও চান্দগাও এলাকায় মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করার সময় সাধারণ মানুষ কে স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলতে নির্দেশনা প্রদান করেন এবং জেলা প্রশাসন, চট্টগ্রামের পক্ষ হইতে মাস্ক বিতরণ করেন।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ফাহমিদা আফরোজ নগরীর খুলশী বায়েজিদ ও চান্দগাও এলাকায় মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করার সময় ২ টি মামলায় ৯০০ টাকা অর্থদণ্ড আদায় করেন এবং সচেতনতার পাশাপাশি মাস্ক বিতরণ করেন।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সুরাইয়া ইয়াসমিন নগরীর কোতোয়ালি সদরঘাট ও ডবলমুরিং এলাকায় মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করার সময় সাধারণ মানুষ কে স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলতে নির্দেশনা প্রদান করেন এবং মাস্ক বিতরণ করা হয়।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ রাজিব হোসেন নগরীর খুলশী এলাকায় মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করার সময় ৪ টি মামলায় ২৫০ টাকা অর্থদণ্ড আদায় করেন এবং মাস্ক বিতরণ করেন।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট হুছাইন মুহাম্মদ নগরীর সিআরবি ও কাজির দেউড়ী এলাকায় মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করে ৪ টি মামলায় ৮০০ টাকা অর্থদণ্ড আদায় করেন।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আব্দুল্লাহ আল মামুন পাহাড়তলী ও আকবরশাহ এলাকায় মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করার সময় ৩ টি মামলায় ১৫০০ টাকা অর্থদণ্ড আদায় করেন এবং জেলা প্রশাসন, চট্টগ্রামের পক্ষ হইতে মাস্ক বিতরণ করেন।