আনোয়ারায় বসতঘরে ধরা পড়ল বন বিড়াল

ইকবাল বাহার, বাংলাদেশ মেইল ::

চট্রগ্রামের আনোয়ারায় ৮নং চাতরি ইউনিয়নের মধ্যম চাতরির সাংবাদিক তৌহিদুল আলমের বসত ঘর থেকে একটি বন বিড়াল ধরা পড়েছে।

( ২৭ এপ্রিল)  মঙ্গলবার সকালে ঘর থেকে এ বিড়ালটি ধরা পড়ার পর মঙ্গলবার দুপুরে চট্রগ্রাম চিড়িয়াখানার তত্বাবধায়ক মো.আতিকুর রহমান এর কাছে এটি হস্তান্তর করা হয়।

গাজী টেলিভিশন চট্রগ্রাম ব্যুরোর ষ্টাফ রিপোটার তৌহিদুল আলম পরিবার পরিজন নিয়ে চট্রগ্রাম শহরে থাকেন। গ্রামের বাড়িতে থাকেন বড় ভাই মাষ্টার শহিদুল আলম। ঘরের বেশীর ভাগ জায়গা খালি পড়ে থাকে। সে সুবাধে ঘরে দীর্ঘদিন ধরে আশ্রয় নেয় বন বিড়ালটি।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে মাষ্টার শহিদুল আলম জানান, রাতে সেহেরী খেতে উঠে তিনি ছোট ভাই তৌহিদের থাকার ঘরে একটি বিড়াল আকৃতির প্রাণী দেখতে পান, বিড়াল টি র গায়ে বাঘের মত দোড়া কাটা দাগ দেখে তিনি একটু ভয় পেয়ে যান। পড়ে স্হানীয়দের সহায়তায় তিনি বন বিড়ালটি ধরে স্ংরক্ষণ করেন। পরে ঘটনাটি ছোট ভাই কে জানালে সে এসে বিড়াল টি চিড়িয়াখানায় নিয়ে যান। আর মঙ্গলবার দুপুরে চট্রগ্রাম চিড়িয়াখানার তত্বাবধায়ক মো.আতিকুর রহমান এর কাছে বিড়াল টি হস্তান্তর করেন সাংবাদিক তৌহিদুল আলম ও সুমন শাহ। এ সময় চিড়িয়াখানার তত্বাবধায়ক মো.আতিকুর রহমান জানান,ধরা পড়া প্রাণীটি একটি বন বিড়াল।

আনোয়ারা উপজেলা প্রানী সম্পদ কর্মকর্তা ডাঃ দেলোয়ার হোসেন জানান, ধরা পড়া প্রানীটির নাম বনবিড়াল।আনোয়ারার দেয়াং পাহাড়ের জঙ্গলে মেছো বাঘ,বন বিড়াল, শেয়াল সহ অনেক হরেক রকম বণ্যপ্রাণী দেখতে পাওয়া যায়। এ সব প্রাণী রাতে বিচরন করে থাকেন। খাদ্য সংকটের কারণে মাঝেমধ্যে এরা লোকালয়ে নেমে আসে।।