চাকরি দেয়ার নামে অর্থ আদায়, বন্দরের সেই ইশরাত বরখাস্ত

বাংলাদেশ মেইল ::

চট্টগ্রাম বন্দরে চাকরি দেওয়ার নামে বিভিন্ন জন থেকে অর্থ আদায়ের দায়ে চট্টগ্রাম বন্দরের পরিবহন শাখার উচ্চমান সহকারী ইশরাত জাহান চৌধুরীকে চাকরি থেকে বরখাস্ত করেছে বন্দর কর্তৃপক্ষ।

এর আগে অসদাচরণ, প্রতারণা ও দুর্নীতির অভিযোগে ওই নারী কর্মকর্তাকে গত বছরের ২২ ডিসেম্বর সাময়িক বরখাস্ত করা হয়। সর্বশেষ বিভাগীয় মামলায় তদন্ত শেষে বৃহস্পতিবার (২৯ এপ্রিল) ওই নারী কর্মকর্তাকে বন্দরের চাকরি থেকে বরখাস্ত করে বন্দর কর্তৃপক্ষ।

ওই নারী রাজন মহাজন, রিপন চন্দ্র দে, আব্দুল করিম, অসীম বণিক, সুব্রত নাথ, রাজিব দাস, অভিজিৎ বিশ্বাস, বিশ্বজিৎ চন্দ্র নম, অরুণ কান্তি দাশ, তানিয়া আকতার, আমীর হামজা, আব্দুল কাদের শরীফ, মো. জাবেদ ও আবুল কাশেমসহ বিভিন্ন ব্যক্তির কাছ থেকে চট্টগ্রাম বন্দর ও কাস্টমসে চাকরি দেওয়ার নামে নিজ ব্যাংক একাউন্টে অর্থ আদায় করে ভুয়া নিয়োগপত্র দেন।
পরে বিভাগীয় তদন্তে অভিযোগকারীদের দাখিল করা কাগজপত্র, ভিডিও ক্লিপ, ফোন আলাপ ও ব্যাংক একাউন্টে অর্থ জমা হওয়ায় জালিয়াতির বিষয়টি নিশ্চিত হয় বন্দর কর্তৃপক্ষ।

এছাড়া ওই নারী কর্মকর্তার বিরুদ্ধে বন্দর কর্তৃপক্ষ ব্যবস্থা নিতে গেলে গত ২৫ জানুয়ারি বন্দর ভবনের তদন্ত কার্যালয়ে এসে অকথ্য ভাষায় গালাগালি ও চিৎকার চেঁচামেচি শুরু করেন। এমনকি তদন্ত কাজে বাধা দিয়ে অভিযোগকারী ও সাক্ষীদের ভয়-ভীতি দেখান।

এসব অভিযোগের প্রেক্ষিতে বন্দরের ইশরাত জাহান চৌধুরীকে প্রথমে সাময়িক বরখাস্ত ও পরে তদন্ত শেষে বৃহস্পতিবার স্থায়ীভাবে বরখাস্ত করে বন্দর কর্তৃপক্ষ।