৫০ লাখ টাকার সুপারিসহ চোর চক্রের ৩ সদস্য গ্রেফতার

সুপারিসহ

বাংলাদেশ মেইল ::

আন্তঃজেলা পণ্যবাহী ট্রাকের মালামাল চুরি সঙ্গে সংশ্লিষ্ট চক্রের ৩ সদস্যকে ৫০ লাখ টাকা মুল্যের সুপারিসহ গ্রেফতার করেছে কোতোয়ালি থানা পুলিশ।

কোতোয়ালি থানা উপপরিদর্শক (এসআই) মো. মেহেদী হাসান, এসআই মিজানুর রহমান চৌধুরী ও উপসহকারী পরিদর্শক (এএসআই) মতিউর রহমানের নেতৃত্বে একদল পুলিশ সিলেট জেলার জৈন্তাপুর থানা ও কানাইঘাট থানার থেকে ১৮২ বস্তা সুপারি উদ্ধার করা হয়েছে। যার বাজার মূল্য প্রায় ৫০ লক্ষ টাকা।

বিষয়টি নিশ্চিত করেন কোতোয়ালি থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ নেজাম উদ্দীন।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন-  মো. ফয়সাল আহমদ(২৭), আজিজুল হক(৫২) ও  লোকমান হোসেন প্রকাশ টুটুল (২৩)। এছাড়া পলাতক আসামিরা হলেন— ট্রাক মালিক ভুট্টু মানিক, মো. শেবলু মিয়া, ড্রাইভার জাহাঙ্গীর, সিদ্দিক, শাহিন, সামছুল এবং দুলাল।

পুলিশ জানায়, গত ৮ জুলাই সন্ধ্যা ৭ টার দিকে নগরের কোতোয়ালি থানার খাতুনগঞ্জ মদিনা হোটেলের সামনে থেকে ট্রান্সপোর্ট ব্যবসায়ী আব্দুল ওহাব লিটন ২০০ বস্তা সুপারি ভুট্টু মানিকের ট্রাকে করে সিলেট কাজী বাজারে প্রেরণ করেন। পরের দিন সকাল ৯টায় মালামাল দোকানে না পৌঁছালে অনেক খোঁজাখুজি পর ট্রাকটি কুলাউড়া থানা এলাকায় পাওয়া যায়। তবে এতে সুপারিগুলো পাওয়া যায়নি। এ ঘটনায় গত ১১ জুলাই আব্দুল ওহাব লিটন বাদি হয়ে কোতোয়ালি থানায় মামলা দায়ের করেন।

কোতোয়ালি থানা উপপরিদর্শক (এসআই) মো. মেহেদী হাসান  জানান, গত বৃহস্পতিবার সিলেট জেলার জৈন্তাপুর থানা এলাকা থেকে মো. ফয়সাল আহমদ, আজিজুল হক ও লোকমান হোসেন প্রকাশ টুটুলকে গ্রেফতার করা হয়। একই দিন তাদের হেফাজতে থাকা ১৮২ বস্তা সুপারি বিভিন্ন এলাকা থেকে উদ্ধার করা হয়।

মেহেদী হাসান বলেন,  জিজ্ঞাসাবাদে তারা জানায়, সিদ্দিক, শাহিন, সামছুল এবং দুলাল চার জনেই পণ্যবাহী ট্রাকের মালামাল শেবলু মিয়া, ভুটু মানিক ও জাহাঙ্গীর কাছ থেকে নিয়ে নিজেদের কাছে রাখেন। উদ্ধারকৃত ১৮২ বস্তা সুপারি বাজার মূল্য অনুমান ৫০ লক্ষ টাকা।

সুপারিসহ গ্রেফতার /বিএম