শুরু হতে যাচ্ছে চবির স্থগিত ও অনলাইন পরীক্ষা,বন্ধ আবাসিক হল

স্থগিত ও অনলাইন ক্লাসের

বাংলাদেশ মেইল ::

সোমবার (১৬ আগস্ট) চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগের স্থগিত ও অনলাইন ক্লাসের পরিক্ষাগুলো নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্তৃপক্ষ। তবে শতভাগ শিক্ষার্থীর টিকার আওতায় না আসা পর্যন্ত আবাসিক হল বন্ধ থাকবে।

বৃহস্পতিবার (১২ আগস্ট) সকালে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বিশ্ববিদ্যালয়ে চলমান/স্থগিত/অসমাপ্ত পরীক্ষা সংক্রান্ত গঠিত কমিটির সদস্য সচিব ও একাডেমিক শাখার ডেপুটি রেজিস্ট্রার সৈয়দ মনোয়ার আলী।

তিনি বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগের স্থগিত ও অনলাইন ক্লাসের পরীক্ষা স্বাস্থ্যবিধি মেনে আগামী ১৬ আগস্ট থেকে সশরীরে অনুষ্ঠিত হবে। পরীক্ষার রুটিনের বিষয়টি সংশ্লিষ্ট বিভাগীয় সভাপতি, পরীক্ষা কমিটির সভাপতি, সংশ্লিষ্ট ডিন, পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক ও প্রক্টর সমন্বয় করবেন। তবে শতভাগ শিক্ষার্থীকে টিকার আওতায় না আনা পর্যন্ত আবাসিক হল বন্ধ থাকবে।

তিনি আরও বলেন, করোনা মহামারী যদি দীর্ঘায়িত হয় তাহলে পরীক্ষা অনলাইনে কীভাবে নেয়া যায় সেজন্য বিভাগগুলোকে একাডেমিক কমিটির সভা করে সিদ্ধান্ত ১২ সেপ্টেম্বরের মধ্যে জানাতে বলা হয়েছে। পরে ডিনবৃন্দর আগামী ৩০ সেপ্টেম্বরের মধ্যে তা এ কমিটির নিকট প্রেরণ করবেন।

এর আগে গত ১৫ জুন বিশ্ববিদ্যালয়ের একাডেমিক কাউন্সিলের সভায় আবাসিক হলগুলো বন্ধ রেখে সশরীরে সব ধরনের একাডেমিক পরীক্ষা গ্রহণের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। পরবর্তীতে বিভিন্ন বিভাগ পরীক্ষার রুটিন ঘোষণা করে। তবে করোনা পরিস্থিতি আবার অবনতির দিকে গেলে পরীক্ষা স্থগিত করা হয়। এর আগে গত ৯ জুন থেকে বিভিন্ন বিভাগের অসমাপ্ত পরীক্ষা নেয়া শুরু হয়। ইতোমধ্যে বিভিন্ন বিভাগের পরীক্ষা সমাপ্তও হয়েছে।